মঙ্গলবার, ২০ নভেম্বর, ২০১৮ | ৬ই অগ্রহায়ণ, ১৪২৫ বঙ্গাব্দ

Logo
Print

বনানীর ধর্ষণ : বিল্লাল ৪, রহমত ৩ দিনের রিমান্ডে

প্রকাশের সময়: ৩:৫৭ অপরাহ্ণ - মঙ্গলবার | মে ১৬, ২০১৭

কারেন্টনিউজ ডটকম ডটবিডি

রাজধানীর বনানীর ‘দ্য রেইন ট্রি’ হোটেলে ধর্ষণের ঘটনায় দায়ের করা মামলায় আসামি আপন জুয়েলার্সের মালিকের ছেলে সাফাত আহমেদের গাড়িচালক বিল্লাল হোসেনের বিরুদ্ধে চার দিন এবং তার দেহরক্ষী রহমতের (আবুল কালাম আজাদ) বিরুদ্ধে তিন দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেছেন আদালত।

মঙ্গলবার তাদের ঢাকার চিফ মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট (সিএমএম) আদালতে হাজির করে মামলার সুষ্ঠু তদন্তের জন্য দশ দিনের রিমান্ড আবেদন করেন তদন্তকারী কর্মকর্তা ভিকটিম সাপোর্ট সেন্টারের পুলিশ পরিদর্শক ইসমত আরা এমি।

শুনানি শেষে ঢাকা মহানগর হাকিম লস্কর সোহেল বিল্লাল হোসেনের বিরুদ্ধে চার দিন এবং রহমতের (আবুল কালাম আজাদ) বিরুদ্ধে তিন দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেন।

এর আগে, সোমবার রাজধানীর নবাবপুর রোডের ইব্রাহীম হোটেল থেকে বিল্লালকে গ্রেফতার করে র্যা ব। একই দিন গুলশান থেকে মামলার অপর আসমি সাফাতের দেহরক্ষী রহমতকেও গ্রেফতার করে ডিবি পুলিশ।

গত বৃহস্পতিবার রাতে মামলার মূল আসামি সাফাত ও তিন নম্বর আসামি সাদমান সাকিফকে সিলেট থেকে গ্রেফতার করে পুলিশ। বর্তমানে তারা রিমান্ডে রয়েছেন। সোমবার সাফাতের গাড়িচালক বিল্লাল ও দেহরক্ষী রহমতকে গ্রেফতারের মধ্য দিয়ে মামলার মোট পাঁচ আসামির চারজনকে গ্রেফতার করে আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনী। তবে দুই নম্বর আসামি নাঈম আশরাফ এখনও পুলিশের ধরাছোঁয়ার বাইরে রয়েছেন।

প্রসঙ্গত, ২৮ মার্চ রাজধানীর বনানীর ‘দ্য রেইন ট্রি’ হোটেলে সাফাতের জন্মদিনে যোগ দিতে গিয়ে অপরাপর বন্ধুদের সহায়তায় ধর্ষণের শিকার হন ওই দুই তরুণী। ওই ঘটনার ৪০ দিন পর ৬ মে সন্ধ্যায় বনানী থানায় পাঁচজনকে আসামি করে মামলা করেন দুই তরুণী।

এজাহারভুক্ত পাঁচ আসামি হলেন- সাফাত আহমেদ, সাদমান সাকিফ, নাঈম আশরাফ, সাফাতের গাড়িচালক বিল্লাল ও তার দেহরক্ষী আবুল কালাম আজাদ (রহমত)।

গত শুক্রবার ঢাকা মহানগর হাকিম সাফাতকে ছয় দিন ও সাদমানকে পাঁচ দিনের রিমান্ড প্রদান করেন।

উপরে