শনিবার, ২২ সেপ্টেম্বর, ২০১৮ | ৭ই আশ্বিন, ১৪২৫ বঙ্গাব্দ

Logo
Print

মীরপুর বাংলা স্কুল এন্ড কলেজের ঐতিহ্য ধরে রাখতে হবে: ইলিয়াস উদ্দিন মোল্লাহ্

প্রকাশের সময়: ৯:৫৭ অপরাহ্ণ - বুধবার | জুলাই ৫, ২০১৭

কারেন্টনিউজ ডটকম ডটবিডি:
ষ্টাফ রিপোর্টারঃ আজ বুধবার বিকাল ৫.০০ ঘটিকায় মীরপুর বাংলা স্কুল এন্ড কলেজে এক সংবর্ধনা ও আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয় ।উক্ত অনুষ্ঠানে  শিক্ষক-শিক্ষিকা ও কর্মকর্তা-কর্মচারীগণ ঢাকা-১৬ আসনের সংসদ সদস্য আলহাজ্ব ইলিয়াস উদ্দিন মোল্লাহ্ ও নতুন এডহক কমিটির সভাপতি মিসেস ফরিদা ইলিয়াস, অভিভাবক প্রতিনিধি ভি.পি সালাউদ্দীন রবিন, শিক্ষক প্রতিনিধি মোহাম্মদ সাফতাক ইসলাম নিজামী ও অধ্যক্ষ (ভারপ্রাপ্ত) এবিএম আব্দুছ ছালামকে ফুল দিয়ে বরণ করে নিলেন। উক্ত সভায় সভাপতিত্ব করেন মীরপুর বাংলা স্কুল এন্ড কলেজের ভারপ্রাপ্ত অধ্যক্ষ এ.বি.এম আবদুছ ছালাম।

অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে ঢাকা-১৬ আসনের সংসদ সদস্য আলহাজ্ব ইলিয়াস উদ্দিন মোল্লাহ শিক্ষক-শিক্ষিকাদের উদ্দেশ্যে বলেন,আপনারা মহান পেশায় নিয়োজিত এবং মানুষ গড়ার কারিগর । তাই আমরা আপনাদের কাছে আমাদের সন্তানদের পাঠিয়েছি লেখাপড়া শিখে মানুষের মত মানুষ হওয়ার জন্য। আপনাদের জ্ঞান তাদের মাঝে ছড়িয়ে দিবেন এটাই আমার প্রত্যাশা, কিন্তু আপনারা যদি তা না করে, নিজেরা একে অপরের বিপক্ষে ঘরে-বাহিরে সমালোচনা করেন তাহলে আমাদের সন্তানরা আপনাদের নিকট থেকে কি শিখবে ! যদিও  আদালতের আদেশ মতে আমি এই স্কুলের কমিটিতে থাকতে পারি নাই, এর অর্থ এই নয় যে আপনারা আপনাদের সুখ-দুঃখের কথা আমাকে জানাতে পারবেন না। যেহেতু এই শিক্ষা প্রতিষ্ঠান আমার ঢাকা-১৬ আসনের মধ্যে অবস্থিত। সেই কারণে আমার সামনে মীরপুর বাংলা স্কুল এন্ড কলেজ ধ্বংস হয়ে যাবে এটা আমি কখনও সহ্য করতে পারবনা।আমি আপনাদের সকলের প্রতি উদাত্ত আহবান জানাই, আপনারা সকল শিক্ষক-শিক্ষিকাগন নিজ নিজ দায়িত্ব পালনে আন্তরিক হবেন এবং মীরপুরের ঐতিহ্যবাহী এই শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের সুনাম অর্জনে সচেষ্ট থাকবেন।

অভিভাবক প্রতিনিধি সালাউদ্দীন রবিন তার বক্তব্যে বলেন, আমরা যাকে নিয়ে গর্ববোধ করি তিনি ঢাকা-১৬ আসনের মাননীয় সংসদ সদস্য ইলিয়াস উদ্দিন মোল্লাহ্। ঢাকা-১৬ আসনের জনগণ তাঁর সাথে মন খুলে কথা বলতে পারেন। মাননীয় সংসদ সদস্যের কাছে ধণী গরীবের কোন ভেদাভেদ নাই। প্রতিদিন পল্লবী ও রূপনগর থানার শত শত অসহায় মানুষের সমস্যা তাৎক্ষণিক ভাবে তিনি সমাধান করে দেন। এই আসনে এমন কোন স্কুল-কলেজ, মাদ্রাসা-এতিমখানা, মন্দির-গীর্জা নেই যেখানে মাননীয় সংসদ সদস্যের হাতের ছোঁয়া লাগে নাই। আমি আল্লাহর নিকট দোয়া করি আল্লাহ পাক্ যেন উনাকে সুস্থ্য রাখেন। তিনি আরও বলেন, এখন পর্যন্ত আপনারা গত মাসের বেতন-ভাতা পান নাই। ইনশা আল্লাহ্ শীঘ্রই বকেয়া বেতন-ভাতা পাওয়ার ব্যবস্থা করা হবে।

সভাপতির বক্তব্যে ভারপ্রাপ্ত অধ্যক্ষ এ.বি.এম আবদুছ ছালাম বলেন, পবিত্র ঈদুল ফিতরের আগে শিক্ষক-কর্মচারীদের ৫ মাসের বকেয়া বেতনসহ বোনাস পাওয়ার ব্যবস্থা করায় মাননীয় প্রধান অতিথিসহ নতুন এডহক কমিটির সকল সদস্যবৃন্দকে শিক্ষক মন্ডলী ও কর্মচারীদের পক্ষ থেকে কৃতজ্ঞতা জানান।

উক্ত অনুষ্ঠানে আরও উপস্থিত ছিলেন, মিরপুর বাংলা স্কুল এন্ড কলেজের সাবেক অধ্যক্ষ বদর উদ্দিন হাওলাদার।

 

Social Media Auto Publish Powered By : XYZScripts.com

উপরে