বুধবার, ২১ নভেম্বর, ২০১৮ | ৭ই অগ্রহায়ণ, ১৪২৫ বঙ্গাব্দ

Logo
Print

নদী দখলের বিষয়ে সরকারের জিরো টলারেন্স -জাতীয় নদী রক্ষা কমিশনের চেয়ারম্যান 

প্রকাশের সময়: ৬:৪৬ অপরাহ্ণ - মঙ্গলবার | জুন ২৬, ২০১৮

কারেন্টনিউজ ডটকম ডটবিডি: 

শফিকুল ইসলাম সুমন, মানিকগঞ্জ: জাতীয় নদী রক্ষা কমিশনের চেয়ারম্যান ড. মুজিবুর রহমান হাওলাদার বলেছেন, নদী দখলের বিষয়ে সরকারের জিরো টলারেন্স। নদী দখল যেকোন ব্যক্তি বা প্রতিষ্ঠানই করে থাকুক তা অবিলম্বে দখলমুক্ত করা হবে।এক্ষেত্রে সবার আগে ব্যবস্থা নিতে হবে বড় বড় এবং শক্তিশালীদের বিরুদ্ধে। যাতে ছোট ছোট পক্ষ নিজ উদ্যোগেই নদীর দখল ছেড়ে পালিয়ে যায়।

তিনি মঙ্গলবার দুপুরে মানিকগঞ্জ জেলা প্রশাসকের সম্মেলন কক্ষে জেলা নদী রক্ষা কমিটির সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যদানকালে একথা বলেন। জেলা প্রশাসক মো. নাজমুছ সাদাত সেলিমের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত এই সভায় বক্তব্য রাখেন কমিশনের সদস্য (সার্বিক) মো. আলাউদ্দিন, শিবালয় সার্কেলের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার হাবিবুর রহমান, মানিকগঞ্জ প্রেসক্লাবের সভাপতি গোলাম ছরোয়ার ছানু, ধলেশ্বরী নদী বাঁচাও আন্দোলনের আহবায়ক আজহারুল ইসলাম আরজু, যুগ্ম আহবায়ক জাহাঙ্গীর আলম বিশ্বাস, সদস্য দীপক কুমার ঘোষ ও ইকবাল হোসেন কচি।

জাতীয় নদী রক্ষা কমিশনের চেয়ারম্যান ড. মুজিবুর রহমান হাওলাদার তার বক্তব্যে আরো বলেন, নদীকে বাচিয়ে রাখার জন্য সরকার প্রধান আন্তরিকভাবে চেষ্টা করে যাচ্ছেন। সরকারের একজন হয়ে আমাদেরকেও আন্তরিকভাবে কাজ করতে হবে। তিনি বলেন, নদী রক্ষায় হাইকোর্টের যে রায় আছে, সেই রায়ের আলোকে স্ব-স্ব জেলা প্রশাসন এবং সংশ্লিষ্ট দপ্তর সহজেই নদীকে দখল ও দুষণমুক্ত করতে পারবে। তিনি  নদী দখল ও দূষণমুক্ত করতে সকলকে এগিয়ে আসার আহান জানান।

তিনি বলেন, নদীর পানি যেখানে যাবে তা নদী হিসেবে বিবেচিত হবে। তা যদি ব্যক্তিরও সেটাও নদী হিসেবে বিবেচিত হবে।

এর আগে তিনি মানিকগঞ্জের সিঙ্গাইর উপজেলার ধল্লা সেতু সংলগ্ন এলাকায় ধলেশ্বরী নদী দখল করে পাওয়ার প্ল্যান্ট স্থাপনের এলাকা পরিদর্শণ করেন।

উপরে