বুধবার, ১৪ নভেম্বর, ২০১৮ | ৩০শে কার্তিক, ১৪২৫ বঙ্গাব্দ

Logo
Print

সারিয়াকান্দিতে যমুনার পানি বিপদ সীমার ৮ সে.মি. নিচে

প্রকাশের সময়: ৩:২৯ অপরাহ্ণ - রবিবার | জুলাই ৮, ২০১৮

কারেন্টনিউজ ডটকম ডটবিডি
বগুড়া প্রতিনিধি: উজান থেকে নেমে আসা পাহাড়ী ঢলের পানিতে বগুড়ার সারিয়াকান্দিতে যমুনা নদীর পানি বৃদ্ধি পেয়ে নিম্নাঞ্চল ও চর এলাকার হাজার হাজার লোকজন পানিবন্দি হয়ে পড়েছে।  পানি উন্নয়ন বোর্ড সূত্রে জানাযায়, যমুনা নদীর পানি গত ২৪ ঘন্টায় ২১ সে.মিটার পানি বেড়ে ওঠে বিপদ সীমার ৭ সে.মিটার নিচ দিয়ে প্রবাহিত হচ্ছে। ফলে সারিয়াকান্দি ও ধুনট উপজেলার নিম্নাঞ্চল ও চর এলাকার লোকজন পানি বন্দি হয়ে পড়েছে। যমুনা নদীর পানি বৃদ্ধির ফলে সারিয়াকান্দি উপজেলার চন্দনবাইশা ইউনিয়নের ঘুঘুমারী গ্রামে বন্যার পানি ঢুকে পড়েছে। স্থানীয় বাসিন্দারা বাড়িঘর ছেড়ে স্থানীয় ওয়াপদা বাঁধে কয়েক হাজার পরিবার অবস্থান নিয়েছে। বন্যায় বোহাইল ইউনিয়নের চর মাঝবাড়ি, কালিয়ান, কর্ণিবাড়ী ইউনিয়নের শনপচা, ইন্দুরমার, কাজলা ইউনিয়নের চরঘাগুয়া, পাকুরিয়া, চালুয়াবাড়ী ইউনিয়নের চরকাকালিহাতা, শিমুলতাইর, বিরামের পাঁচগাছি, হাটশেরপুর ইউনিয়নের কর্ণিবাড়ী, চকরতিনাথ, করমজাপাড়া, ও সারিয়াকান্দি সদর ইউনিয়নের চর বাটিয়া গ্রামের হাজার হাজার লোকজন পানিবন্দি হয়ে পড়ায় তারা দুর্ভোগে পড়েছে। যমুনা নদীর পানিবৃদ্ধির ফলে পানি উন্নয়ন বোর্ডের নির্মিত ওয়াপদা বাধ ও তীর সংরক্ষণ কাজ আপাতত ঝুঁকিমুক্ত রয়েছে। তবুও পানি উন্নয়ন বোর্ডের লোকজন সার্বক্ষণিক বন্যা পরিস্থিতি মনিটরিং করছে। উপজেলা প্রশাসনের পক্ষ হতে বন্যা কবলিত এলাকা পরিদর্শন করা হয়েছে। পানি উন্নয়ন বোর্ডের এসও সরোয়ার ই জাহান জানান, যমুনা নদীর পানি বিপদ সীমার নিচ দিয়ে প্রবাহিত হলেও আগামী দু’এক দিনের মধ্যে বিপদসীমা অতিক্রম করবে। তাই তারা সতর্ক অবস্থানে রয়েছেন এবং সার্বক্ষণিক মনিটরিং করা হচ্ছে। যাতে কোথাও কোন দুর্ঘটনা না ঘটে।

উপরে