মঙ্গলবার, ১৫ অক্টোবর, ২০১৯ | ৩০শে আশ্বিন, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ

Logo
Print

মহাষ্টমীতে কুমারীপূজা অনুষ্ঠিত

প্রকাশের সময়: ১২:১৮ অপরাহ্ণ - বুধবার | অক্টোবর ১৭, ২০১৮

(সংগৃৃহীত ছবি)

কারেন্টনিউজ ডটকম ডটবিডি

 

আজ শারদীয় দুর্গোৎসবের ৩য় দিন, চলছে মহাঅষ্টমী তিথি৷ দেবীর চরণে পুষ্পাঞ্জলী অর্পণের জন্য ভক্তদের কাছে সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ দিন এটি৷ এ দিনে হিন্দু ধর্মাবলম্বী প্রতিটি মানুষ উপবাস করে মায়ের চরণে পুষ্পাঞ্জলী অর্পণ করেন৷

বুধবার সকালে দেশের প্রতিটি মণ্ডপে দুর্গাদেবীর মহাষ্টম্যাদি বিহিত পূজা প্রশস্তা ও মহাষ্টমীর ব্রতোপবাস অনুষ্ঠিত হয়েছে। অগণিত ভক্ত দেবীর চরণে পুষ্পাঞ্জলী অর্পণ করেছেন। মহাষ্টমীর পাশাপাশি রাজধানীর রামকৃষ্ণ মঠে কুমারী পূজাও অনুষ্ঠিত হয়েছে৷

এদিকে, অষ্টমী বিহিত পূজা উপলক্ষে রাজধানীর প্রতিটি পূজা মণ্ডপে ভক্তদের সুবিধার্থে নেয়া হয়েছে বিশেষ ব্যবস্থা। কারণ পূজার পাঁচ দিনের মধ্যে এ দিনটিতেই মণ্ডপগুলোতে ভক্তদের উপচে পড়া ভিড় হয়৷ পুষ্পাঞ্জলীর জন্য স্থান সংকুলান করা খুব ঝামেলার কাজ হয়ে দাঁড়ায় প্রতিটি মণ্ডপেই। শারদীয় দুর্গোৎসবের মহাঅষ্টমীর মূল আকর্ষণ কুমারী পূজা।

হিন্দুশাস্ত্র মতে, জগতমাতাকে (দেবীদুর্গা) সকল নারীর মধ্যেই মাতৃরূপে পাওয়া যায়। এ উপলব্ধি সকলের মধ্যে জাগ্রত করার জন্যই কুমারী পূজা অনুষ্ঠিত হয়ে থাকে। দুর্গা মাতৃভাবের প্রতীক আর কুমারী নারীর প্রতীক। কুমারীর মধ্যে মাতৃভাব প্রতিষ্ঠাই এ পূজার মূল লক্ষ্য।

যেভাবে দেবী দুর্গার আরাধনা করা হয়, কুমারী পূজার সময় দুর্গা প্রতিমার সামনে একইভাবে একজন কুমারীকে বসিয়ে সেই সম্মান প্রদান করা হয়। শুধু মাটির প্রতিমা নয়, নারীর মধ্যেও মাতৃভাব আনা হয়।

এদিকে, এ বছর পূজার মধ্য দিয়ে ৬৭ বছরে পদার্পণ করেছে পুরান ঢাকার ঐতিহ্যবাহী পূজা কমিটি সম্মিলনী৷ এ কমিটির পরিচালনায় রাজধানীর ফরাশগঞ্জের বিহারী লাল জিউর মন্দির প্রাঙ্গণে বুধবার মহাষ্টমীর তিথি অনুযায়ী মহাষ্টমী বিহিত পূজা প্রশস্তা ও মহাষ্টমীর ব্রতোপবাস অনুষ্ঠিত হয়েছে।

উপরে