বুধবার, ১৯ ডিসেম্বর, ২০১৮ | ৫ই পৌষ, ১৪২৫ বঙ্গাব্দ

Logo
Print

সরকারি কর্মকর্তাদের অলির হুঁশিয়ারি

প্রকাশের সময়: ৪:৪২ অপরাহ্ণ - বৃহস্পতিবার | নভেম্বর ২২, ২০১৮

কারেন্টনিউজ ডটকম ডটবিডি

আসন্ন একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে সরকারি কর্মকর্তাদের ‘নিরপেক্ষ’ ভূমিকা রাখার আহ্বান জানিয়েছেন ২০ দলীয় জোটের প্রধান সমন্বয়ক ও লিবারেল ডেমোক্রেটিক পার্টির (এলডিপি) সভাপতি ড. কর্নেল (অব.) অলি আহমদ। আর নিরপেক্ষ থাকলেই কেবল ২০ দলীয় জোট নির্বাচিত হলে ওই কর্মকর্তাদের বিরুদ্ধে কোনো ব্যবস্থা নেবে না বলেও হুঁশিয়ারি উচ্চারণ করেন তিনি।

বৃহস্পতিবার দুপুরে রাজধানীর বনানীতে ফিউশন হান্ট হোটেলে আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে এলডিপি সভাপতি এ কথা বলেন।

‘অবাধ, সুষ্ঠু ও নিরপেক্ষ নির্বাচনের মাধ্যমে আগামী দিনে আমরা নির্বাচিত হলে কিছু বিষয় গুরুত্বসহকারে বিবেচনা করবো’ জানিয়ে বিএনপির নেতৃত্বাধীন ২০ দলীয় জোটের এ সমন্বয়ক বলেন, ‘যে সরকারি কর্মকর্তারা ১০ বছর এ সরকারকে টিকিয়ে রেখেছেন, তারা আসন্ন নির্বাচনে নিরপেক্ষ ভূমিকা পালন করলে তাদের বিরুদ্ধে কোনো ব্যবস্থা নেওয়া হবে না। সবার প্রতি সমান আচরণ করা হবে।’

‘যেসব সরকারি কর্মকর্তা ২৪ ঘণ্টা দায়িত্ব পালন করেন বা পালনের জন্য প্রস্তত থাকতে হয়, তাদের জন্য বেতনের ক্ষেত্রে বিশেষ সুবিধা দেওয়া হবে। পুলিশ বাহিনীর জন্য বিভিন্ন বিভাগীয় শহরে পৃথক হাসপাতাল ও মেডিকেল কলেজ নির্মাণ করা হবে। এতে তাদের সুচিকিৎসা নিশ্চিত হবে এবং তাদের মেধাবী ছেলে-মেয়েদের স্বল্প বেতনে ডাক্তারি পড়ার সুযোগ হবে।’

অলি আহমদ বলেন, ‘আমাদের দৃঢ় বিশ্বাস একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনের সময় সর্বস্তরের সরকারি, আধা-সরকারি এবং বেসরকারি সংস্থার কর্মকর্তা-কর্মচারীরা দলীয় প্রভাবমুক্ত হয়ে নিজের বিবেকের তাড়নায় জনগণের ভোটের অধিকার নিশ্চিত করবেন। কোনো রাজনৈতিক দলের সেবাদাস হিসেবে দায়িত্ব পালন করা মুনষ্যত্বের কাজ হবে না।’

এলডিপির এই সভাপতি বলেন, ‘একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনের তফসিল ঘোষণার পরও বিএনপিসহ বিরোধী দলের নেতাকর্মীদের গ্রেপ্তার করে রিমান্ডে নেয়া হচ্ছে। মামলাও চলছে। অথচ নির্বাচন কমিশন (ইসি) নীরব দর্শকের ভূমিকা পালন করছে। এতে জাতীয় সংসদ নির্বাচন বাধাগ্রস্ত হবে বলে মনে করেন অলি।’

তিনি বলেন, ‘নির্বাচন পরিচালনায় যেসব কর্মকর্তা নিয়োজিত থাকবেন, ইসিকে তাদের দায়িত্ব নিতে হবে।’

২০-দলীয় জোটের এ শীর্ষ নেতা বলেন, ‘সৎ, যোগ্য ও জনগ‌ণের ম‌নের মানু‌ষকেই ম‌নোনয়ন দেয়া হ‌বে। বিতর্কিত ব্যক্তিরা জোটের মনোনয়ন পাবেন না।’

এলডিপি সভাপতি আরও বলেন, ‘ভোটের অধিকার প্রতিষ্ঠা করতে হবে। জনগণের দ্বারা নির্বাচিত প্রতিনিধির মাধ্যমে সরকার গঠন করতে হবে। এর জন্য প্রয়োজন জনগণের সৎ সাহস ও সচেতনতা।’

অলি আহমেদ আরো বলেন, ‘নতুন নতুন ব্যাংক অনুমোদনের ফলে অর্থনীতিতে যে কোনো সময় ব্যাপক ধস নামতে পারে। এখন জনগণের পিঠ দেয়ালে ঠেকে গেছে। এ অবস্থা থেকে উত্তরণের জন্য জাতি, ধর্ম, দলমত নির্বিশেষে সবাইকে ঐক্যবদ্ধ হতে হবে।’

সংবাদ সম্মেলনে এলডিপির মহাসচিব ড. রেদোয়ান আহমেদ, সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব শাহাদাত হোসেন সেলিম প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

সংবাদ সম্মেলনে সুষ্ঠু ও নিরপেক্ষ নির্বাচন অনুষ্ঠানে এলডিপির পক্ষ থেকে কয়েকটি প্রস্তাব তুলে ধরা হয়।

বাংলাদেশ জার্নাল

উপরে