শনিবার, ২৭ ফেব্রুয়ারি, ২০২১ | ১৪ই ফাল্গুন, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ

Logo
Print

ছোট ভাইয়ের পৌরসভার নির্বাচন নিয়ে যা বললেন ওবায়দুল কাদের

প্রকাশের সময়: ৯:৪২ অপরাহ্ণ - শনিবার | জানুয়ারি ১৬, ২০২১

currentnews

আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের বলেছেন দেশের ভোটের সংস্কৃতি নিয়ে বিএনপির মিথ্যাচারের জবাব দিয়েছে নোয়াখালীর বসুরহাট পৌরসভার ভোটাররা।

শনিবার সকাল ৮টা থেকে বিকাল ৪টা পর্যন্ত দেশের ৬০টি পৌরসভায় একযোগে ভোটগ্রহণ অনুষ্ঠিত হয়। এরমধ্যে নোয়াখালীর বসুরহাট পৌরসভাটি ছিল দেশজুড়ে ব্যাপক আলোচনায়। পৌরসভাটিতে ক্ষমতাসীন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদেরের ছোট ভাই কাদের মির্জা নৌকা প্রতীকে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করেন। তিনি বিএনপিকে হারিয়ে বিপুল ভোটে জয়ী হয়েছেন।

ওবায়দুল কাদের বিকালে তার সরকারি বাসভবন থেকে দ্বিতীয় ধাপের ৬০টি পৌরসভা নির্বাচন পরবর্তী তাৎক্ষণিক ব্রিফিংয়ে বসুরহাট পৌরসভা নির্বাচনে বিএনপির প্রার্থীও যেখানে অবাধ ও সুষ্ঠু নির্বাচন হয়েছে বলে গণমাধ্যমকে জানিয়েছেন, সেখানে অন্ধকারে ঢিল না ছুঁড়ে মির্জা ফখরুল সাহেবকে নিজ দলের প্রার্থীর কথা অনুধাবন করার আহ্বান জানান।

তিনি বলেন, শান্তিপূর্ণ পরিবেশে ভোটারদের ব্যাপক অংশগ্রহণ ও উৎসব আমেজে ভোটাধিকার প্রয়োগের মাধ্যমে নির্বাচন নিয়ে যারা মিথ্যাচার করে, তার জবাব দিয়েছে জণগণ। নির্বাচনে স্বতঃস্ফূর্ত অংশগ্রহণ করায় ভোটারদের এবং নির্বাচন কমিশনকে আন্তরিক অভিনন্দন জানান আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক।

ওবায়দুল কাদের বলেন, নির্বাচনে জয় পরাজয় থাকবে। তবুও স্থানীয় সরকার প্রতিষ্ঠানগুলোকে শক্তিশালী করার মাধ্যমে গণতন্ত্রকে এগিয়ে নিতে এ নির্বাচনে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করার জন্য সব প্রার্থীদের ধন্যবাদ জানান।

ভোটারদের ব্যাপক অংশগ্রহণ ও ভোটাধিকার প্রয়োগ, ইভিএমের ক্রমবর্ধমান জনপ্রিয়তাই প্রমাণ করে বলেও ব্রিফিংয়ে মন্তব্য করেন তিনি।

বিএনপি উদ্দেশ্যমূলক বিরোধিতা করলেও দেশের জণগণ অত্যন্ত সাবলিলভাবে ইভিএমে ভোট প্রদান করছে জানিয়ে ওবায়দুল কাদের বলেন, ডিজিটাল প্রযুক্তি ব্যবহারে জণগণ ইতোমধ্যে অভ্যস্ত হয়ে উঠলেও বিএনপির মানসিকতা এখনও এনালগ রয়ে গেছে। তাই তারা এ পদ্ধতির বিরোধিতা করে।

বিএনপি মুখে স্বচ্ছতার কথা বললেও প্রকৃতপক্ষে প্রযুক্তি বিমুখ এবং পিছিয়ে পড়া ধ্যানধারণা আঁকড়ে ধরে বসে থাকতে চায় বলেও উল্লেখ করেন ওবায়দুল কাদের।

নোয়াখালীর বসুরহাট পৌরসভা নির্বাচন নিয়ে গণমাধ্যম এবং রাজনৈতিক মহলে ব্যাপক আগ্রহ ছিল উল্লেখ করে আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক বলেন, সেখানেও অবাধ, শান্তিপূর্ণ ও অংশগ্রহণমূলক নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়েছে।

বিএনপির প্রার্থীরা ভোটের পরিবেশ ও ভোটাধিকার প্রয়োগ নিয়ে সন্তোষ প্রকাশ করলেও তাদের কেন্দ্রীয় নেতারা শুধুমাত্র সমালোচনার জন্য সমালোচনা করছেন, যা অত্যন্ত দুঃখজনক বলে মনে করেন ওবায়দুল কাদের।

আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আরও বলেন, প্রথমবারের মতো বসুরহাট পৌরসভা নির্বাচনে ইভিএমে ভোট হয়েছে এবং ৬০ ভাগেরও বেশি ভোটার উপস্থিত ছিলেন। অথচ মির্জা ফখরুল সাহেব আমাকে ব্যক্তিগতভাবে আক্রমণ করে যেসব কথা বলেছেন, তার জবাব আমি না দিলেও বসুরহাট পৌরসভার ভোটারগণ শান্তিপূর্ণ ও স্বতঃস্ফূর্ত অংশগ্রহণের মাধ্যমে এর জবাব দিয়েছেন।

https://www.revenuecpmnetwork.com/hsbkfw8q51?key=6336343637613361393064313632333634613266336230363830336163386332

উপরে